দূর্গা রূপ – শম্পা সাহা

বারুদ ছিল মনের ভেতর

আগুন তবু জ্বলল না

ঘেন্না করে ওরা ভীষণ

মুখ ফুটে কেউ বলল না। 

মারল ছুঁড়ে অ্যাসিড শিশি

কাটলো গলা নৃশংস

মানুষ ওরা ভাবলো না তো

ভাবলো শুধুই নারী মাংস। 

ছুঁড়লো  আগুন জ্বাললো চিতা

সতীদাহের কি বদনাম! 

মা মেয়েরা মেয়েছেলেই

এটাই আজো যে সম্মান। 

পণের নামে পণ্য হলাম

শুষলি রক্ত থাকলো ছাই

তাই আমি মানুষ বলতে

আজ নিজেকে লজ্জা পাই। 

মানুষ আমি নইরে আজ

মেয়ে হয়েই বাঁচতে চাই

লক্ষ্মী নয় চন্ডীর রূপ

আজকে আমি নিয়েছি তাই। 

আসবি নাকি? মারবি নাকি? 

দেখি কত সাধ্য তোর? 

ছিঁড়বোই আজ নাড়ীর বাঁধন

দেখি কত তোর পেশীর জোড়। 

আমি যেমন জন্ম দিই

মারতে পারি তেমন ই

বুঝি শুধুই লক্ষ্মী চেন? 

দূর্গা রূপ দেখোইনি। 

Published by Story And Article

Word Finder

Leave a Reply

%d bloggers like this: