প্রলয়ের পর — সুব্রত মজুমদার

প্রলয়ের পর   --  সুব্রত মজুমদার
একদিন থেমে যাবে কলকোলাহল ট্রেনের হুইশেল আর ইঞ্জিনের রব, 
খেলাশেষে শ্রান্ত হয়ে ছেলেদের দল মহোল্লাসে  ফিরে যাবে সব। 
যন্ত্রের যন্ত্রণা যেন তোমার বিরহ, রজ্জুবদ্ধ মহিষের মতো
মুক্তি তার অতিব দুরূহ। মেডুসার মতো কালো ধোঁয়া  যত
কূটিল সর্পের কেশ করে আলোড়ন, হৃদয় পাথর হয় শরীরের সাথে।
মুচকি হেসে দাঁড়ায় শমন, বলে – ‘ ওহে, হয়েছে সময়, চলো হবে যেতে।’
সহসা তখন তুমি এলে, নীলপাড় শাড়ি, গায়ে মেখে বেলির সুবাস,
মাথায় কিরীট শুভ্র জ্বলে অধরেতে শুচিশুভ্র হাস।
সবুজ তোমার তোমার শাড়ি বুকের উপর, ভ্রুভঙ্গে উঠেছে ঝড় পাইন শাখায়, 
নাভির জটিলাবর্তে উন্মত্ত যে স্মর নিজের মৃত্যুর পানে ধায়।
নতুন জন্মের পরে দেখি এক অচেনা সকাল পাখিদের ডাকে ভাঙ্গে ঘুম ;
নিকানো উঠানে চড়াইয়ের দল কিচমিচি করে আর নিস্তবদ্ধ নিঝুম
পুকুরের জলে লাগে দোলা। বাউর বাতাস ছুটে চলে দিক হতে দিকে, 
শালের বনেতে করে খেলা, আমোদিত করে পৃথিবীকে ।
ইটের পঞ্জরে মহীরুহ ইঞ্জিনের গায়ে কচিঘাস, রেলের লাইনে খেলে শিশু, 
পৃথিবীর রাজা অধিরাজ, – আজ দাস, প্রভু সে তো নয়, নগ্নদেহে আজ সে তো পশু। 
ফেসবুক মন্তব্য

Published by Story And Article

Word Finder

Leave a Reply

%d bloggers like this: