বাবুল আচার্যী // চক্রবৃত্ত – এক অমোঘ টান

https://www.sahityakaal.com

সমুদ্রের ফেন শীর্ষ ঢেউগুলোর দিকে চোখ গেছে কতবার !

যতবার পড়ি জীবনের ঘূর্ণাবর্তে ….

জীবন- মরন আবর্তন, বিবর্তন ও পরিবর্তন কি… ততবার ।

ঢেউ গুলো জেগে জেগে,

যেতে যেতে আগে ভাগে ;

ছোট থেকে হয় বড়ো ,বড়ো থেকে ছোট ।

জ্বলজ্বল করে ওঠে সারা;

যেন উত্তরায়নে ডোবা সূর্য তারা ।

চলে যাবার আগে ,

অগাধ জলাধির বুকে ,

চক্রবৃত্তের গূঢ় তত্ত্ব বলতে চায়;

ভাটার জলের অনন্ত ধারায় ।

অন্ত্যের পরে আদির উত্থান,

আদির শেষে অন্তের বিতান ।

মুখরা ও অন্তরার অন্তরালে,

স্বর গুলো যেন ভারি দোলে;

স্বর থেকে স্বরের দোলনায়,

এ জীবনের বহু কিছু বদলায় !

আর মিশে যায় জীবনের সবুজ আঙিনায় ।

আজ যে সুপ্তকলি, কাল সে পূর্ণতা;

পূর্ণতা র ঢলে নামে অসীম শূন্যতা ।

এই ওঠা নামা, নামা ওঠা_

চক্রবৃত্তের একটি মাত্র পট ছবি;

পশ্চিম থেকে পুবে ওঠা,

বিগত দিনের রবি।

অন্ধকার থেকে আলোর পাঁক বৃত্ত,

যেন এক তালে র একটি মাত্র নৃত্য ।

যেখানে, জীবন কাঁদে হাসে, তালে তালে নাচে;

পুতুলের সাথে করে সঙ্গ , পুতুলের সাথে বাঁচে।

এরপর করুণা ঘন সন্ধ্যা নেমে আসে,

হারিয়ে যায় এ জীবন নগ্ন মলিন বেশে;

আদি ও অন্তের মধ্যে আছে যে এক অমোঘ টান;

স্রষ্টা চলেছে করে,অনন্ত কাল ধরে, তারি সম্মান ।

Leave a Comment

Your email address will not be published. Required fields are marked *