Sujeet Das

নামঃ সমাজের বৈষম্য।
লেখাঃ সুজিৎ দাস।
.
তুমি আনন্দ পাও,হুল্লোরে ভড়া নানান অনুস্ঠানের রেওয়াজে…
তখন কেউ কান্নায় ভেংগে পরে,ক্ষুধার বায়না হয়না পূরন তোমার হাসির আওয়াজে…
কেউ একটা রুটির জন্য চলন্ত গাড়ির কাঁচ মুছে দেয়,ছুড়ে দেয়া কিছু টাকার আশায়…
অন্যেরা তখন হোটেলের কামড়ায় চাইনিজ কিংবা পিজ্জায় অহেতুক টাকা ভাসায়…
কেউ তোমার ফেলে খাবারে তৃপ্ততা পায় ড্রেনের ধারে দাঁড়িয়ে…
কেউই কি কখনো দিয়েছো কি আদর, দিয়েছো কি দুহাত বাড়িয়ে…
তোমার পুরনো জামাটা ফেলে রেখেছো,গায় জড়াতে ইতস্তবোধ করো_এইতো কিনলে সেদিন…
পথের ধারে হাজারো মানুষ খালি গায় খালি পরনে,দিতে তো পারো পুরোনো জামাটা_খুজতে তাদের লাগেনা দূরবীন…
দেখেছি আমি ফুলের বিনিময় কিনে নেয় ক্ষুধা _ক্ষুধাতুর কিছু বালিকা…
১০ টাকার ফুল নিতেও যাদের দরকষাকষি, কিভাবে বুঝবে বেদনা_যতোই না থাকুক ইমারত অট্টালিকা…
কথার বেলায় সমাজসেবক, হাজার কথার ভাষণ…
সুযোগ বুঝে কামিয়ে রাখে, শক্ত করে আসন…
ছাদে বসে আকাশ দেখে স্বপ্ন বানায় হাজার…
কারো ঘরের উনুন জ্বলেনা,আসেনা কোনো বাজার…
আমি তুমি দেখেও দেখিনা,চোখ বুঝে নিশ্বাসে…
রাত্রি হলে তাদের কান্না,তোমার চোখেও ভাসে????

Leave a Comment

Your email address will not be published. Required fields are marked *

Scroll to Top